বিশ্ব

মোদিকে নিয়ে অবমাননাকর মন্তব্য করায় মালদ্বীপের তিন মন্ত্রী বরখাস্ত

ভারত ও সে দেশের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে নিয়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ‘আপত্তিকর’ পোস্ট দেওয়ায় মালদ্বীপের তিন মন্ত্রীকে বরখাস্ত করেছে সরকার।

মোদিকে নিয়ে অবমাননাকর মন্তব্য করায় মালদ্বীপের তিন মন্ত্রী বরখাস্ত

এই পোস্ট নিয়ে ভারতে এমনকি মালদ্বীপেও ব্যাপক তোলপাড় শুরু হয়েছিল। অনেক ভারতীয় তাঁদের মালদ্বীপ সফর বাতিল করেন।

 

মালদ্বীপ সরকার এক বিবৃতিতে জানায়, সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে প্রতিবেশী ভারতকে ‘অবমাননা’ করে দেওয়া কিছু পোস্টের বিষয়ে ভারত সরকারের অবস্থান সম্পর্কে মালদ্বীপের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় আজ এক বিবৃতি দিয়েছে।

বিবৃতিতে আরও বলা হয়, সরকারি পদে থেকে যাঁরা এ ধরনের পোস্ট দিয়েছেন, এখন তাঁদের বরখাস্ত করা হয়েছে।

এই তিন মন্ত্রী হলেন মরিয়াম শিউনা, মালশা শরিফ ও মাহজোম মাজিদ।

সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ভারতের ইউনিয়ন টেরিটরি লাক্ষাদ্বীপ সফর করেন। এরপর তিনি সফরের কিছু ছবি ও ভিডিও পোস্ট করেন। সেখানে তাঁকে স্নোরকেলিং করতে দেখা যায়, যা ভাইরাল হয়। ভারতীয়দের মালদ্বীপের বদলে সেই দ্বীপে ভ্রমণেরও আবেদন করেছিলেন তিনি। তারপরই মালদ্বীপের ওই তিন মন্ত্রী ও কয়েকজন নেতা মোদির বিরুদ্ধে ‘আপত্তিকর’ মন্তব্য করেন।

সম্প্রতি ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি দেশটির ইউনিয়ন টেরিটরি লাক্ষাদ্বীপ সফর করেন
সম্প্রতি ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি দেশটির ইউনিয়ন টেরিটরি লাক্ষাদ্বীপ সফর করেনছবিটি মোদির এক্স থেকে নেওয়া

এরপর বেশ কয়েকজন বিরোধী দলীয় নেতা ‘কড়া ভাষায়’ ওই মন্ত্রীদের বক্তব্যের নিন্দা জানান। আজ শুরুর দিকে মালদ্বীপ সরকার বিষয়টি থেকে নিজেদের দূরে রেখেছিল। বলেছিল, ‘ওই বক্তব্য একান্তই তাদের নিজেদের, এই বক্তব্য কোনোভাবেই মালদ্বীপ সরকারের প্রতিনিধিত্ব করে না।’

মালদ্বীপ সরকারের বিবৃতিতে আরও বলা হয়, গণতান্ত্রিক ও দায়িত্বশীলভাবে বাক্‌স্বাধীনতার চর্চা করা উচিত। এবং এমনভাবে কিছু করা উচিত নয়, যাতে ঘৃণা বা নেতিবাচক কিছু ছড়ায়। এমন কিছু করা ঠিক নয়, যা মালদ্বীপ ও তাঁর আন্তর্জাতিক অংশীদারদের মধ্যকার ঘনিষ্ঠ সম্পর্ককে পেছনে ঠেলে দেয়।

সরকারের এই বিবৃতির পর মালদ্বীপে ব্যাপক ক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে। দেশটির ‘ঘনিষ্ঠ প্রতিবেশী’কে নিয়ে এমন মন্তব্যের সমালোচনা করছেন বেশ কয়েকজন বিশিষ্ট নেতাও। মালদ্বীপের সাবেক প্রেসিডেন্ট মোহাম্মদ নাশিদ এসব মন্তব্যকে ‘ভয়াবহ’ বলে মন্তব্য করেছেন। তিনি রাষ্ট্রপতি মোহাম্মদ মুইজ্জুর সরকারকে এমন মন্তব্য করা থেকে নিজেদের দূরে রাখতে বলেন।

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button