'সে প্রতারক, এখানে নারীবাদ টেনে এনে সিমপ্যাথি দেখানো বোকামি'

শি ইজ এ ফ্রড ( সে একজন প্রতারক), এইখানে নারীবাদ টেনে এনে সিমপ্যাথি দেখানো বোকামি। আজ অনেকেই বলছেন ও ঘুরে দাঁড়াইছে এই করছে সেই করছে এটা যদি সে অন্য কিছুতে করতো আমি সাপোর্ট করতাম।

বাট এতো বড় একটা কমপিটিশন-এর সাথে ফ্রড করাতে আই উইল নট সাপোর্ট হার। শি লাইড এবাউট হার প্যারেন্টস, চেঞ্জড হার নেম লাইড এবাউট হার ম্যারিজ অ্যাজ ওয়েল হোয়েন নি রুলস অফ দ্য কম্পিটিশন।কথাগুলো বলছিলেন লাক্স তারকা ফারিয়া শাহরিন। যখন ‘মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ’ জান্নাতুল নাঈম এভ্রিল বিতর্ক তুঙ্গে তখন তিনি বতাঁর বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়ে এসব কথা বললেন।

পড়াশোনার জন্য মালয়েশিয়ায় বসবাসরত বাংলাদেশি এই অভিনেত্রী এর আগে ফেসবুকে আরো একটি স্ট্যাটাস দিয়েছেন। যেখানে তিনি লিখেছেন,  ‘যা দেখলাম গ্রামের মেয়ে গুলাই বেশি স্মার্ট। আগে দুই-তিনটা বিয়ে করে কী সুন্দর মুখের ওপর বলে দেয় আমি বিয়ে করি নাই। কাবিন, ভিডিও, ছবি থাকার পরও একবার মনে হয় না, সব কিছু সবাই জেনে যাবে একদিন। জেনে যাওয়ার পরও দেখি খুব আত্মবিশ্বাস নিয়ে বলে আসে এসব মিথ্যা! অনেক হাসি পেল।

ফারিয়া আরো বলেন, অবশ্য এদের দোষ দিয়ে লাভ কী? আমাদের দেশের নায়িকারাই তো এদের আইডল। বিয়ের ছবি, বাসরের ছবি, চুমু দিয়ে জড়িয়ে ধরার ছবি, কাবিনের ছবি বের হওয়ার পরও বলে আমি ভার্জিন। এমনকি নামও জরিনা থেকে হয়ে যায় জ্যাকলিন। বোরকা থেকে বিকিনি। আমারাই দেখি অনেক পিছিয়ে আছি। একটা বিয়ে করারও দুর্ভাগ্য হলো না। নাম বদলে ফেলা তো অনেক দূরের কথা। ’

ফারিয়া শাহরিন বর্তমাানে মালয়েশিয়াতে অবস্থান থাকলেও গত বছর কিছুদনের জন্য দেশে ফিরে বেশ কয়েকটি বিজ্ঞাপন ও নাটকে অভিনয় করেছিলেন। তারপর আবারও অভিনয় ছেড়ে ফিরে যান পড়াশোনার জন্য মালয়েশিয়াতে।

'সে প্রতারক, এখানে নারীবাদ টেনে এনে সিমপ্যাথি দেখানো বোকামি'

শি ইজ এ ফ্রড ( সে একজন প্রতারক), এইখানে নারীবাদ টেনে এনে সিমপ্যাথি দেখানো বোকামি। আজ অনেকেই বলছেন ও ঘুরে দাঁড়াইছে এই করছে সেই করছে এটা যদি সে অন্য কিছুতে করতো আমি সাপোর্ট করতাম।

বাট এতো বড় একটা কমপিটিশন-এর সাথে ফ্রড করাতে আই উইল নট সাপোর্ট হার। শি লাইড এবাউট হার প্যারেন্টস, চেঞ্জড হার নেম লাইড এবাউট হার ম্যারিজ অ্যাজ ওয়েল হোয়েন নি রুলস অফ দ্য কম্পিটিশন।কথাগুলো বলছিলেন লাক্স তারকা ফারিয়া শাহরিন। যখন ‘মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ’ জান্নাতুল নাঈম এভ্রিল বিতর্ক তুঙ্গে তখন তিনি বতাঁর বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়ে এসব কথা বললেন।

পড়াশোনার জন্য মালয়েশিয়ায় বসবাসরত বাংলাদেশি এই অভিনেত্রী এর আগে ফেসবুকে আরো একটি স্ট্যাটাস দিয়েছেন। যেখানে তিনি লিখেছেন,  ‘যা দেখলাম গ্রামের মেয়ে গুলাই বেশি স্মার্ট। আগে দুই-তিনটা বিয়ে করে কী সুন্দর মুখের ওপর বলে দেয় আমি বিয়ে করি নাই। কাবিন, ভিডিও, ছবি থাকার পরও একবার মনে হয় না, সব কিছু সবাই জেনে যাবে একদিন। জেনে যাওয়ার পরও দেখি খুব আত্মবিশ্বাস নিয়ে বলে আসে এসব মিথ্যা! অনেক হাসি পেল।

ফারিয়া আরো বলেন, অবশ্য এদের দোষ দিয়ে লাভ কী? আমাদের দেশের নায়িকারাই তো এদের আইডল। বিয়ের ছবি, বাসরের ছবি, চুমু দিয়ে জড়িয়ে ধরার ছবি, কাবিনের ছবি বের হওয়ার পরও বলে আমি ভার্জিন। এমনকি নামও জরিনা থেকে হয়ে যায় জ্যাকলিন। বোরকা থেকে বিকিনি। আমারাই দেখি অনেক পিছিয়ে আছি। একটা বিয়ে করারও দুর্ভাগ্য হলো না। নাম বদলে ফেলা তো অনেক দূরের কথা। ’

ফারিয়া শাহরিন বর্তমাানে মালয়েশিয়াতে অবস্থান থাকলেও গত বছর কিছুদনের জন্য দেশে ফিরে বেশ কয়েকটি বিজ্ঞাপন ও নাটকে অভিনয় করেছিলেন। তারপর আবারও অভিনয় ছেড়ে ফিরে যান পড়াশোনার জন্য মালয়েশিয়াতে।

© Copyright 2014-2018, All Rights Reserved ||| Powered By AnyNews24.Com || Developer By Abir-Group

%d bloggers like this:
www.scriptsell.net